করোনা চিকিৎসায় রেমডেসিভির কার্যকারিতা প্রমাণিত: ড. ফাউসি

করোনা চিকিৎসায় রেমডেসিভির কার্যকারিতা প্রমাণিত: ড. ফাউসি
  • 5
    Shares

পরীক্ষামূলকভাবে তৈরি করা ওষুধ রেমডেসিভির করোনাভাইরাস রোগীদের চিকিৎসার জন্য কার্যকর বলে প্রমাণিত হয়েছে বলে জানিয়েছেন যুক্তরাষ্ট্রের জাতীয় অ্যালার্জি এবং সংক্রামক রোগ ইনস্টিটিউটের পরিচালক অ্যান্থনি স্টিফেন ফাউসি।

বুধবার (২৯ এপ্রিল) হোয়াইট হাউসে ন্যাশনাল ইন্সটিটিউট অফ অ্যালার্জি অ্যান্ড ইনফেকশাস ডিজিজ-এর তত্ত্বাবধানে বিশ্বের বিভিন্ন প্রান্তের ১০৬৩ মানুষের ওপর পরিচালিত একটি গবেষণার তথ্য তুলে ধরেন ফাউসি। এদের বেশির ভাগের মধ্যে রেমডেসিভির দেওয়া হয়েছিল। অন্যদের প্লেসেবো (ভুয়া ওষুধ) দেওয়া হয়। তাতে দেখা গেছে রেমডেসিভির গ্রহণকারীরা গড়ে ১১ দিনের মধ্যে সুস্থ হয়ে উঠেছেন। অন্যদিকে প্লেসেবো গ্রহণকারীদের সুস্থ হতে সময় লেগেছে গড়ে ১৫ দিন।

তবে ক্লিনিক্যাল ট্রায়ালের সূত্রে যুক্তরাষ্ট্রের এক বিজ্ঞানী জানিয়েছেন, করোনা আক্রান্তদের শরীরে রেমডেসিভির দেওয়ার পরে দেখা গেছে অন্যদের তুলনায় কম সময়ের মধ্যে তারা সুস্থ হয়ে ওঠে। তবে এই ওষুধ মৃত্যুহার কমাতে পারবে কিনা, তা এখনও প্রমাণিত হয়নি।

ফাউসি বলেন, সকল তথ্য প্রমাণের ভিত্তিতে দেখা যায় যে, রেমিডেসিভির প্রয়োগের ফলে করোনা আক্রান্ত রোগী দ্রুত সুস্থ হয়ে যাচ্ছেন।

গবেষণায় দেখা গেছে, যে সব করোনা আক্রান্ত রোগী রেমডেসিভির গ্রহণ করেছে তাদের মৃত্যুহার ৮ শতাংশ ছিল কিন্তু যারা প্লেসেবো নিয়েছে সেখানে তাদের মৃত্যুহার ছিল ১১.৬ শতাংশ। তবে এটি দ্বারা প্রমাণিত নয় যে রেমডেসিভির মৃত্যুহার কমায়।

ফাউসি আরও বলেন, এখন থেকে প্রমাণিত হলো যে আমরা করোনা চিকিৎসা দেওয়ার জন্য যে কোনও একটি ওষুধ ব্যবহার করতে পারবো।

সূত্র: বিবিসি