দৌলতদিয়া ঘাটে নেই আলাদা কোনো নজরদারি

দৌলতদিয়া ঘাটে নেই আলাদা কোনো নজরদারি
  • 4
    Shares

দেশের দক্ষিণ-পশ্চিমাঞ্চলের ২১ জেলার মানুষের অন্যতম প্রবেশদ্বার রাজবাড়ীর গোয়ালন্দের দৌলতদিয়া ফেরিঘাটে আলাদা কোনো নজরদারির ব্যবস্থা নেই স্থানীয় প্রশাসনের। রয়েছে শুধুমাত্র দৌলতদিয়া ট্রাফিক পুলিশ ও নৌপুলিশের কিছুটা নজরদারি।

গোয়ালন্দ উপজেলার মানুষের করোনামুক্ত রাখার জন্য স্থানীয় প্রশাসনের একজন ম্যাজিস্ট্রেটের তত্ত্বাবধানে একটি ভ্রাম্যমাণ আদালতের টিম কাজ করলেও গুরুত্বপূর্ণ এই নৌবন্দরের জন্য প্রশাসনের কোনো বিশেষ নজরদারি নেই। বিষয়টি স্বীকার করেছেন গোয়ালন্দ উপজেলা নির্বাহী অফিসার রুবায়েত হায়াত শিপলু।

বৃহস্পতিবার (৩০ এপ্রিল) সরেজমিন ঘাট এলাকা ঘুরে প্রশাসনের কাউকে খুঁজে পাওয়া যায়নি। শুধুমাত্র দৌলতদিয়া ট্রাফিক পুলিশের সদস্যরা ঘাটের সার্বিক পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণ করছেন।

অন্যদিকে ৫নং ফেরিঘাটে গিয়ে দেখা যায়, ঢাকা ফেরত যাত্রীদের জন্য অপেক্ষা করছে প্রায় ৩০-৪০টিরও বেশি অটোরিকশা। আর পোশাক শ্রমিকরা তাদের কর্মস্থলে ফেরার জন্য হুড়োহুড়ি করে ফেরিতে উঠছে। নেই কোনো সামাজিক দূরত্ব।

গোয়ালন্দ উপজেলা নির্বাহী অফিসার রুবায়েত হায়াত শিপলু সাংবাদিকদের বলেন, ঘাটের জন্য আমাদের স্পেশাল কোনো টিম কাজ করছেনা। তবে পুরো উপজেলার জন্য যে টিমটি কাজ করছে তারা মাঝে মাছে টহল দিচ্ছে। সেখানে সেনাবাহিনীর সদস্য ও নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেট রয়েছে। তাছাড়া নদীতে নৌ-পুলিশের একটি টিমও কাজ করছে।

এ সময় তিনি আরো বলেন, গার্মেন্টস শ্রমিকদের জন্য আমরা কিছুটা নমনীয় ও মানবিক হয়েছি। তবে আমরা তাদেরকে সামাজিক দূরত্ব বজায়ে রাখার বিষয়টি বারবার বলছি।