লকডাউনের মধ্যে ডাকাতির চেষ্টা ভারতীয় ক্রিকেটারের বাড়িতে

লকডাউনের মধ্যে ডাকাতির চেষ্টা ভারতীয় ক্রিকেটারের বাড়িতে

করোনাভাইরাসের কারণে দেশে দেশে লকডাউন। কাজ নেই, খেটে খাওয়া মানুষের খাবার নেই। এ কারণে চুরি-ডাকাতি বেড়ে যাওয়ার শঙ্কা সৃষ্টি হয়েছে সব দেশেই। বাংলাদেশে এরই মধ্যে পুলিশের পক্ষ থেকে সতর্কবার্তা জারি করা হয়েছে।

ভারতেও একই অবস্থা। এরই মধ্যে ডাকাতির ঘটনা ঘটলো ভারতীয় জাতীয় দলের এক ক্রিকেটারের বাড়িতে। ভারতীয় দলের ক্রিকেটার ঋদ্ধিমান সাহার বাড়িতে ডাকাতির চেষ্টা করা হয় বলে থানায় অভিযোগ দায়ের করেছেন ঋদ্ধিমানের চাচা মলয় সাহা। এ ঘটনায় চাঞ্চল্য সৃষ্টি হয়েছে টিম ইন্ডিয়ার টেস্ট উইকেটরক্ষক ব্যাটসম্যান গ্রামের বাড়ি শিলিগুড়ির শক্তিগড় এলাকায়।

বৃহস্পতিবার রাতে ফাঁকা বাড়িতে ডাকাতির চেষ্টা করা হয় বলে অভিযোগে জানা যায়। ঋদ্ধিমানের চাচা মলয় সাহা জানিয়েছেন, বর্তমানে কলকাতায় রয়েছেন ঋদ্ধিমানের বাবা-মা। লকডাউনের কারণে শিলিগুড়িতে আসতে পারেননি তাঁরা। ফলে শিলিগুড়ির ঋদ্ধিমানের বাড়ি তালা দেওয়া রয়েছে; কিন্তু ফাঁকা বাড়িতে সুযোগ বুঝে ডাকাতির চেষ্টা করে ডাকাতদল।

মলয় সাহার অভিযোগ, বৃহস্পতিবার রাতে একটি গাড়িতে করে কয়েকজন ডাকাত আসে। ঘরের তালা ভাঙতে যাবে এই সময় বিষয়টি টের পেয়ে যান প্রতিবেশীরা। তাদের চিৎকারে দ্রুত সেখান থেকে গাড়ি নিয়ে পালিয়ে যায় ডাকাতরা।

ঘটনাটি সঙ্গে সঙ্গে জানানো হয় এনজেপি থানায়। খবর পেয়ে রাতেই পুলিশ ঘটনাস্থলে আসে। পুরো এলাকা টহল দেয় পুলিশ। কাউকে ধরতে না-পারলেও ঘটনার তদন্ত শুরু করেছে নিউ জলপাইগুড়ি থানার পুলিশ। ঘটনায় ঋদ্ধিমানের পরিবারের পক্ষ থেকে থানায় লিখিত অভিযোগ দায়ের করা হয়েছে বলে জানাচ্ছে ভারতীয় মিডিয়া।

গত মাসেই দ্বিতীয় সন্তানের বাবা হয়েছেন ভারতীয় টেস্ট দলের এই উইকেটরক্ষক ব্যাটসম্যান। ৬ মার্চ ঋদ্ধিমানের স্ত্রী রোমি সাহা এক পুত্র সন্তানের জন্ম দেন। তার সাত বছর বয়সী একটি মেয়ে রয়েছে।

আইএইচএস/